সংবাদ শিরোনামঃ
প্রচ্ছদ / বগুড়ার খবর / টাকা দিলে থার্টিফোর না দিলে নেশাখোরঃবগুড়ার শাজাহানপুর থানা পুলিশের বেপরোয়া আচরণ

টাকা দিলে থার্টিফোর না দিলে নেশাখোরঃবগুড়ার শাজাহানপুর থানা পুলিশের বেপরোয়া আচরণ

মো.আব্দুল ওয়াদুদ, বগুড়া প্রতিনিধি : বগুড়া শাজাহানপুর থানা পুলিশের বেপরোয়া আচরণে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে স্থানীয় জনসাধারণ। উপজেলার গ্রাম, বন্দর ও হাট-বাজার এলাকা থেকে যে কাউকে আটক করে বিভিন্ন ভয়ভীতি দেখিয়ে উৎকোচের বিনিময়ে মাঝ রাস্তায় ছেড়ে দেয়া, টাকা দিতে অপারগ হলে তাকে আসামী বানিয়ে যেকোন মামলায় চালান করে দেয়া সহ বিভিন্ন কর্মকান্ডের কারণে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর প্রতি মানুষের বিন্দুমাত্র শ্রদ্ধাবোধ হারিয়ে যাচ্ছে। একস্থান থেকে লোকজনকে ধরে নিয়ে এসে কাগজ-কলমে অন্যস্থান দেখিয়ে ৩৪ ধারার আসামী বানিয়ে চালান করে দিয়ে নিজেদের স্বার্থ হাসিল করছে। আইনের শাসনের মাধ্যমে নিরাপত্তা দেয়ার নামে যারা জনসাধারণকে এভাবে দিনের পর দিন ঠকিয়ে যাচ্ছে তাদের প্রতি আগামী প্রজন্মের কতটুকু শ্রদ্ধাবোধ থাকবে বিষয়টি এখন প্রশ্নবিদ্ধ? চলতি মাসের ১১ তারিখ শাজাহানপুর থানার এসআই গাউছুল আজম উপজেলার জামাদারপুকুর এলাকা থেকে ৩ জনকে মাদক সহ আটক করে থানায় নিয়ে আসে। আটককৃতরা হলো উপজেলার গোহাইল ইউনিয়নের সাধরা গ্রামের হেলাল উদ্দিনের পুত্র সোহেল রানা, নন্দীগ্রাম উপজেলার সিংজানী গ্রামের চাঁন মিয়ার পুত্র আনোয়ার হোসেন ও একই গ্রামের খোরশেদ আলমের পুত্র হেলাল উদ্দিন। আটকের পর তাদেরকে মাদক মামলায় চালান না করে মোটা অংকের উৎকোচ নিয়ে পৌরসভা এলাকায় আটক দেখিয়ে ৩৪ ধারায় চালান করে দেয়। এ বিষয়ে এসআই গাউসুল আজমের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি প্রথমে কোন মন্তব্য করতে রাজি নন, সাক্ষাতে কথা হবে বলে ফোন কেটে দেন। শাজাহানপুর থানার অফিসার ইনচার্জ আজিম উদ্দিন বলেন পৌরসভা এলাকা থেকে মাদক সহ বা নেশাগ্রস্থ অবস্থায় কাউকে আটকের পর থার্টিফোর করা যায়, অন্যথায় নয়। তবে এ ঘটনার বিষয়ে তিনি কিছুই জানেন না।

Check Also

রোটারী ক্লাব অব বগুড়ার উদ্যোগে বগুড়ায় বৃক্ষরোপন কর্মসূচী পালিত

মোঃ আব্দুল ওয়াদুদ,বগুড়া প্রতিনিধিঃ মঙ্গলবার বেলা ১১ টায় যথাযত স্বাস্থ্যবিধি মেনে বগুড়া সরকারি আজিজুল হক …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

two × 4 =