সংবাদ শিরোনামঃ
প্রচ্ছদ / বগুড়ার খবর / ধুনট সরুগ্রামে কাদার মোড়কে কাঁচা সড়কঃ এলাকাবাসীর চরম বিড়ম্বনা

ধুনট সরুগ্রামে কাদার মোড়কে কাঁচা সড়কঃ এলাকাবাসীর চরম বিড়ম্বনা

রাকিবুল ইসলাম , ধুনটঃ বগুড়ার ধুনট উপজেরার কালেরপাড়া ইউনিয়নের সরুগ্রামে কাদার মোড়কে ঢাকা পরে আছে জনবহুল এলাকার ব্যস্ততম কাঁচা সড়ক। সরুগ্রামে তিন মুক্তিযোদ্ধা, প্রভাষক, ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, শিক্ষকসহ অনেক গুণীজন বসবাস করেন। গ্রামের ওই সড়কের বেহাল অবস্থা দেখে আশেপাশের এলাকার নানা ধরনের লোক নানা ভাবে বাজে মন্তব্য করে। তখন মনে কষ্ট নিয়ে আলাপের ছলে অনেকেই উত্তর দেয় কাঁদার কারনে নিচের পাকা সড়কটি দেখে যাচ্ছে না। ব্যাঙ্গাত্বক এই উত্তরটা বুকের ভিতর কতটা ব্যথা হলে দিতে পারে কেউ কি সেটা জানে?

ঐতিহ্যবাহী সরুগ্রামে একটি উচ্চ বিদ্যালয়, একটি প্রাথমিক বিদ্যালয়, একটি কেজি স্কুল ও একটি হাফেজিয়া মাদ্রাসা সহ বেশ কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান রয়েছে। বিভিন্ন গ্রাম থেকে শিক্ষার্থীরা এই একটিমাত্র রাস্তায় চলাচল করে। তাছাড়া কাঁদাময় সড়কে প্রতিদিন চলাচলের সময় দুর্ঘটনায় পরতে হচ্ছে অনেকেই। প্রতিবছর দেশের তাবলিগ জামাতের বৃহত্তম দ্বিতীয় বিশ্ব ইজতেমা অনুষ্ঠিত হয় এই গ্রামে। যে গ্রামের ইজতেমায় লক্ষ লক্ষ মানুষের সমাগম হয়। সেই গ্রামের ভিতর একটিমাত্র কাচা সড়ক সামান্য বৃষ্টির কারনে এভাবে নষ্ট হয়ে যাবে? কে দেবে এই উত্তর?

কাদাই থেকে সরুগ্রাম উচ্চ বিদ্যালয় পর্যন্ত প্রায় ৩ কিলোমিটার সড়কে যানবাহন তো দুরের কথা পায়ে হেঁটে চলাচল করাটাও কষ্টকর। সরজমিনে দেখাযায় সড়কের কাদা মাটিতে কিছু ধানের চারা লাগিয়ে নিরবে স্থানীয়রা মনের কষ্টটা বোঝানোর চেষ্টা করেছে। সড়কের কাদায় ধানের চারা, সড়কের দুপাশে বসে কাদা দেখে দেখে যেন অসম্ভব ভাবনার জগতে অসহায় মানুষ।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুল হান্নান জানান, সড়কটি নিয়ে কিছুদিন আগে উপজেলা ইঞ্জিয়ার অফিসে কথা বলেছিলাম। তখন তিনি আমাকে মৌখিক বাবে বলেছিলেন কাদাই থেকে সরুগ্রাম সড়কের চাহিদাটা মন্ত্রনালয়ে দেয়া আছে। ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি জুলফিকার আলী মাষ্টার জানান, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল হাই খোকনের কাছ থেকে জানতে চেয়েছিলা। তিনি বলেছেন কাদাই থেকে সরুগ্রাম সড়কের ১ কিলোমিটারের চাহিদা দেওয়া আছে আশা করা যায় শীঘ্রই কাজ সমস্যার সমাধান হবে। স্থানীয়ভাবে জানা যায় কাদাই থেকে সরুগ্রাম প্রায় আড়াই কিলোমিটার সড়কের ১ কিলোমিটারের চাহিদা দিলেও বাদ বাকি প্রায় দেড় কিলোমিটারের চাহিদা কবে হবে সেটাও সাধারন মানুষের কাছে ধুঁয়াশা। সড়কটি নিয়ে বিপাকে পড়ে সড়ক সংশ্লিষ্ট মহলের সুদৃষ্টি কামনা করেন স্থানীয় সাধারন মানুষ।

Check Also

সোনাতলায় চরপাড়া বাজারে সিটি ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংকিং শাখার উদ্বোধন

আব্দুর রাজ্জাক,স্টাফ রিপোর্টারঃ বগুড়ার সোনাতলা উপজেলা জোড়গাছা ইউনিয়নের চরপাড়া বাজারে দি সিটি ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংকিং …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

fifteen − 10 =