সংবাদ শিরোনামঃ
প্রচ্ছদ / বগুড়ার খবর / বগুড়ার সোনাতলায় বিকাশ থেকে উপবৃত্তি উত্তোলনে প্রতারণার শিকার হচ্ছে অসংখ্য শিক্ষার্থী

বগুড়ার সোনাতলায় বিকাশ থেকে উপবৃত্তি উত্তোলনে প্রতারণার শিকার হচ্ছে অসংখ্য শিক্ষার্থী

ইকবাল কবির লেমন, বাঙালি বার্তাঃ বগুড়ার সোনাতলা ফাজিল (ডিগ্রী) মাদ্রাসাসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা উপবৃত্তি প্রাপ্তির ক্ষেত্রে বিকাশ প্রতারণার শিকার হচ্ছে। উপবৃত্তি তুলতে গিয়ে অনেক শিক্ষার্থী দেখতে পাচ্ছে শূণ্য এ্যাকাউন্ট অথবা তার নামের সাথে অন্য কারো বিকাশ এ্যাকাউন্ট। চরম বিপত্তিতে পড়ে শিক্ষার্থীরা প্রতিষ্ঠান প্রধানসহ বিভিন্ন দপ্তরে ঘুরলেও পাচ্ছেনা কাঙিক্ষত প্রতিকার। বৃহস্পতিবার উপবৃত্তির টাকা প্রাপ্তির ক্ষেত্রে হয়রানির শিকার সোনাতলা ফাজিল ( ডিগ্রী ) মাদ্রাসার আলিম প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী মোঃ মিল্লাত হোসেনের সাথে কথা হলে সে জানায়, নবম ও দশম শ্রেণিতে বিকাশের মাধ্যমে আমার এ্যাকাউন্টে যথাযথভাবে উপবৃত্তির টাকা আসলেও দশম শ্রেণির শেষ কিস্তির উপবৃত্তির টাকা অদ্যাবধি পাইনি। বিকাশ এজেন্টদের কাছে গেলে তারা আমার নামের সাথে অন্য এক ছাত্রীর এ্যাকাউন্ট নম্বর দেখায় । ওই এ্যাকাউন্টেও কোন টাকা নেই। এ ব্যাপারে সোনাতলা ফাজিল (ডিগ্রী) মাদ্রাসার অধ্যক্ষ আতাউর রহমান আনসারী জানান, ‘আমার মাদ্রাসায় দুইজন শিক্ষার্থীর এমন ঘটনা ঘটেছে।’ হরিখালী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল্লাহ আল মাসুদ জানান, ‘সোনাতলার প্রায় সকল প্রতিষ্ঠানে বিকাশের দ্বারা বিড়ম্বিত হওয়ার এমন ঘটনা ঘটছে।’ বিষয়টি নিয়ে সোনাতলা উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ আজিজার রহমানের সাথে কথা বললে তিনি জানান, ‘নির্ধারিত শিক্ষার্থীর নির্ধারিত বিকাশ এ্যাকাউন্টে উপবৃত্তির টাকা না আসার অনেক অভিযোগ পেয়েছি। আমি এ ঘটনার প্রেক্ষিতে গত সেপ্টেম্বর মাসে সোনাতলা উপজেলার সকল মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধান ও বিকাশ প্রতিনিধিদের সাথে সমন্বয় সভার আয়োজন করেছিলাম। সেখানে বিকাশ প্রতিনিধিদের কাছে অভিযোগগুলো তুলে ধরা হয়। কিন্তু এখন পর্যন্ত কোন প্রতিকার পাওয়া যায়নি। এছাড়াও আমি বিষয়টি উপবৃত্তি প্রকল্পের পরিচালক মহোদয়কেও জানিয়েছি।’

Check Also

সোনাতলা থিয়েটারের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নুরুন্নবীর মা’র মৃত্যুতে শোক

সোনাতলা (বগুড়া) প্রতিনিধি: সোনাতলা থিয়েটারের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রমজান আলী নুরুন্নবীর মা জোবেদা বেগমের মৃত্যুতে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

three × one =