সংবাদ শিরোনামঃ
প্রচ্ছদ / বগুড়ার খবর / বগুড়ায় বিএনপি নেতা ভিপি সাইফুলের বাসভবনে হামলা: চাপাতি ও মোটর সাইকেল জব্দ

বগুড়ায় বিএনপি নেতা ভিপি সাইফুলের বাসভবনে হামলা: চাপাতি ও মোটর সাইকেল জব্দ

মো: আব্দুল ওয়াদুদ, বগুড়া প্রতিনিধি : বগুড়া জেলা বিএনপির আহবায়ক কমিটি নিয়ে বিতর্কের জের ধরে সদ্য বিলুপ্ত জেলা বিএনপির সভাপতি ও জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ভিপি সাইফুল ইসলামের বাসভবনে হামলা করেছে আরেক গ্রুপের নেতাকর্মীরা। গত বুধবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে শহরের সুত্রাপুর রিয়াজ কাজী লেনে কমফোর্ট গার্ডেন এ হামলার ঘটনা ঘটে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তিনটি চাপাতি ও দুইটি মটর সাইকেল উদ্ধার করেছে।জানা গেছে, বুধবার বিকেলে শহরের নবাববাড়ি সড়কে জেলা বিএনপি কার্যালয়ের সামনে দুইপক্ষের মধ্যে ধাক্কাধাক্কি হয়। একপর্যায় উভয় গ্রুপের মধ্যে বৃহস্পতিবার আলোচনার জন্য সমঝোতা বৈঠক হওয়ার প্রস্তাবের পর পরিস্থিতি শান্ত হয়। বুধবার বিকেলের ঘটনা নিয়ে ফেসবুকে পোষ্ট দেয়াকে কেন্দ্র করে রাত ৮টার দিকে শহরের জলেশ্বরীতলা এলাকায় শহর ছাত্রদলের সভাপতি সৌরভ হাসানকে মারধর করে অপর পক্ষের নেতাকর্মীরা। এঘটনার পর রাত সাড়ে ১১ টার দিকে সৌরভ হাসানের পক্ষে ৩০-৪০ জন নেতাকর্মী মটর সাইকেল যোগে শহরের সুত্রাপুর রিয়াজ কাজী লেনে কমফোর্ট গার্ডেন এ হামলা চালায়। বহুতল ওই ভবনের দোতলায় বসবাস করেন সদ্য বিলুপ্ত জেলা বিএনপির সভাপতি ভিপি সাইফুল ইসলামকমফোর্ট গার্ডেন এর নিরাপত্তা কর্মী আব্দুল গফুর জানান , ৩০-৪০ জন যুবক হঠাৎ এসে প্রধান গেটে হামলা চালিয়ে ভাংচুর শুরু করে। তারা ভিপি সাইফুল ইসলামের নাম উল্লেখ করে গালিগালাজ করে এবং গেট ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করার চেষ্টা চালায়। থানায় খবর দিলে পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌছলে তারা পালিয়ে যায়।বগুড়া সদর থানার এসআই জাহেদুর রহমান বলেন,খবর পেয়ে পুলিশ পৌছলে হামলাকারীরা দুইটি মটর সাইকেল ও তিনটি চাপাতি ফেলে পালিয়ে যায়। তিনি বলেন যতদুর জানাগেছে বিএনপির আরেক গ্রুপের নেতাকর্মীরা এই হামলা চালিয়েছে।
সদ্য বিলুপ্ত জেলা বিএনপির সভাপতি ভিপি সাইফুল ইসলাম জানান, কারা কি উদ্দেশ্য হামলা করেছে আমার জানা নাই।তিনি বলেন আমি হৈচৈ শুনে নীচ তলায় নামার আগেই হামলা কারীরা পালিয়ে যায়।

Check Also

সম্পন্নের পথে স্বপ্নের সোনাতলা প্রেসক্লাব ভবন

ইকবাল কবির লেমনঃ বগুড়া’র সোনাতলা উপজেলার সাংবাদিকদের আকাক্সিক্ষত ও স্বপ্নের প্রেসক্লাব ভবন নির্মাণ কাজ সম্পন্নের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four × one =