সংবাদ শিরোনামঃ
প্রচ্ছদ / জাতীয় / বাংলাদেশ যুব ছায়া সংসদ এর নবম অধিবেশন অনুষ্ঠিত

বাংলাদেশ যুব ছায়া সংসদ এর নবম অধিবেশন অনুষ্ঠিত

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিঃ ‘নয়া স্বাভাবিকতা ও খাদ্য নিরাপত্তা ঝুঁকি উত্তরণে যুব নেতৃত্ব’এই প্রতিপাদ্য নিয়ে আজ ২৫ জুলাই ২০২০ শনিবার বিকাল ৩ টায় অনলাইনে বাংলাদেশ যুব ছায়া সংসদ এর নবম অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয়। স্বেচ্ছাব্রতী যুব সংগঠন ইয়ূথ এগেইনষ্ট হাঙ্গার ও হাঙ্গার ফ্রি ওয়ার্ল্ডসহ দেশের প্রায় ৪০ টি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের উদ্যোগে অনলাইনের মাধ্যমে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। ময়মনসিংহ-৩ আসনের যুব সংসদ সদস্য আদিবা কবির সৃষ্টি ‘নয়া স্বাভাবিকতা ও খাদ্য নিরাপত্তা ঝুঁকি উত্তরণে যুব নেতৃত্ব’ প্রস্তাবটি যুব সংসদে উত্থাপন করেন এবং খাদ্য ও কৃষি খাতে যুব সমাজের অংশগ্রহণ বৃদ্ধির জন্য বিশেষ পরিকল্পনা ও উদ্যোগ গ্রহণ । প্রত্যেকে ইউনিয়নে কৃষি ও খাদ্য যুব বিগ্রেড গঠন। খাদ্য ভ্যালু চেইনের প্রতিটি ধাপে যুব সমাজের অংশগ্রহণ বৃদ্ধি এবং তাদের উদ্যোক্তা হিসেবে গড়ে তুলতে সহজ শর্তে ঋণ প্রদান এবং খাদ্য অধিকার আইন প্রণয়নের মাধ্যমে যুবদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা এবং যুব সংসদ এর প্রাতিষ্ঠানিকীকরণ করা সহ মোট ৫ টি সুপারিশ তুলে ধরেন। তার উত্থাপিত প্রস্তাব ও সুপারিশ এর আলোকে সাধারণ বিধি অনুযায়ী আলোচনা হয়।
অধিবেশনে ৩০০ টি নির্বাচনী আসন থেকে ৩০০ জন যুব প্রতিনিধি এবং ৫০ টি সংরক্ষিত আসন থেকে ৫০ জনসহ মোট ৩৫০ জন যুব প্রতিনিধি অংশগ্রহণ করেন। এর মধ্যে মোট ২৪ জন যুব প্রতিনিধি যুব সংসদে তাদের বক্তব্য উপস্থাপন করেন এবং তারা বলেন, বিশ্বের অন্যান্য দেশের মত বাংলাদেশেও করোনা বিস্তৃত হয়েছে। এর সাথে যোগ হয়েছে ঘূর্ণিঝড় আম্ফান এবং সাম্প্রতিক বন্যা। সব মিলিয়ে দেশের সিংহভাগ জনগোষ্ঠী অর্থাৎ শ্রমজীবী মেহনতি মানুষ খাদ্য নিরাপত্তাহীনতার ঝুঁকিতে রয়েছে বলে অনেকেই মনে করেন। করোনা আমাদের সবকিছু ওলোটপালট করে দিয়েছে এবং আমরা নতুনভাবে আবার ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করছি। দুনিয়া পাল্টাচ্ছে পাল্টাতে হচ্ছে আমাদেরও। নয়া স্বাভাবিকতার বাংলাদেশে প্রতিটি মানুষের খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে। খাদ্য উৎপাদন বৃদ্ধি, বেকারত্ব হ্রাস, তথ্য প্রযুক্তির ব্যবহার, খাদ্য প্রক্রিয়াজাতকরণসহ খাদ্য মান-শৃঙ্খলের বিভিন্ন স্তরে দেশের যুবসমাজকে সম্পৃক্ত করার পরিকল্পনা গ্রহণ করা হলে তা খাদ্য নিরাপত্তা ঝুঁকি মোকাবেলায় সহযোগিতা করবে বলে যুব ছায়া সংসদ মনে করে।

যুব ছায়া সংসদ অধিবেশনে সম্মানিত অতিথি হিসেবে অনলাইনে যুক্ত ছিলেন, উজবেকিস্তানে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মসয়ূদ মান্নান, গ্রীন ইউনিভার্সিটির ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. গোলাম সামদানী ফকির, মৎস অধিদপ্তরের সাবেক মহা পরিচালক ড. সৈদয়দ আরিফ আজাদ, বেসরকারি টিভি চ্যানেল ডিবিসির নিউজ এডিটর প্রণব সাহা, প্রত্যাশা ২০২১ ফোরামের সভাপতি এস এম আজাদ হোসেন ও হাঙ্গার ফ্রি ওয়ার্ল্ড এর কান্ট্রি ডিরেক্টর আতাউর রহমান মিটন। এছাড়াও দেশের অনেক গণ্যমান্য ব্যক্তি অতিথি ও পর্যবেক্ষক হিসেবে অনলাইনে উপস্থি ত ছিলেন। উল্লেখ্য, যুবদের মধ্যে নেতৃত্বের বিকাশ, গণতান্ত্রিক চর্চা বৃদ্ধি, তারুণ্যের অগ্রযাত্রায় সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ে তোলায় প্রণোদনা সৃষ্টির উদ্দেশ্যে মহান জাতীয় সংসদের আদলে ২০১৪ সাল থেকে যুব ছায়া সংসদ এর কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে।

Check Also

অনুষ্ঠিত হলো বাংলাদেশ যুব ছায়া সংসদ এর ১০ম অধিবেশন

সাজেদুর আবেদীন শান্তঃ “আগামীর চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় যুব নেতৃত্ব” এই প্রতিপাদ্য নিয়ে বাংলাদেশ যুব ছায়া সংসদ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

3 − two =