সংবাদ শিরোনামঃ
প্রচ্ছদ / বগুড়ার খবর / সারিয়াকান্দি-সোনাতলা সড়কের বিকল্প রাস্তায় এখন মরণ ফাঁদ

সারিয়াকান্দি-সোনাতলা সড়কের বিকল্প রাস্তায় এখন মরণ ফাঁদ

প্রতিনিধি, সারিয়াকান্দি: কাজ শেষ করার ১ বছর পূর্ণ না হতেই মরণ ফাঁদের সৃষ্টি হয়েছে বগুড়া সারিয়াকান্দি-সোনাতলা সড়কের বিকল্প রাস্তা। রাস্তাটির কয়েকটি স্হানে বিশালাকার গর্তের সৃষ্টি হয়ে ৪ চাকার যান চলাচল আপাতত বন্ধ রয়েছে।
জনগুরুত্বপূর্ণ সারিয়াকান্দি-সোনাতলা সড়কটি গত ১১ বছরেও রিপিয়ারিং হয়নি। ফলে এই রাস্তাটি যান চলাচলের একেবারেই অনুপযোগী হয়ে গেছে। রাস্তাটির পৌর এলাকার হিন্দুকান্দি তিনকানি পুকুর হতে হাটশেরপুর ইউনিয়নের বলাইল বাজার পর্যন্ত ১০ কি মিটারে হাজার হাজার বিশালাকার গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। রাস্তাটি রিপিয়ারিং না হওয়ায় উপজেলার সদর ইউনিয়নের পারতিত পরল গ্রামের ভিতর দিয়ে বিকল্প একটি রাস্তা দিয়ে সকল প্রকার যানবাহন চলাচল করে। গত এক সপ্তাহ ধরে এই বিকল্প রাস্তাটিও ভেঙে অকেজো হয়ে গেছে। রাস্তাটি তোছা মেম্বারের বাড়ির সামনে ভেঙে বিশালাকার গর্তের সৃষ্টি হয়েছে।
রাস্তাটি দিয়ে চার চাকার আর কোন যানবাহনই চলাচল করতে পারছে না। শুধুমাত্র সাইকেল বা ইজিবাইকগুলো চলাচল করছে। এছাড়া ঐ স্হানে রাস্তাটি অন্ধকারাচ্ছন্ন থাকায় যেকোনো সময়ে ঘটতে পারে মারাত্মক দুর্ঘটনা।
রাস্তাটিকে প্রটেক্ট দিতে এর পশ্চিম প্বার্শে একটি গাইড ওয়াল নির্মাণ করা হয়েছে। গাইড ওয়ালটিও বিভিন্ন স্হানে ভেঙে পরে গিয়ে নিশ্চিহ্ন হয়েছে।
উপজেলা ইন্জিনিয়ার অফিস সূত্রে জানা গেছে, রাস্তাটির কাজ সমাপ্ত করার বয়স এখনো ১ বছর পূর্ণ হয়নি। কাজটি জানুয়ারী ২০২১ সালে সস্পাদন করেছে মেসার্স লিটন কনস্ট্রাকশন নামে একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান। এর প্রাক্কলিত মূল্য ২৫ লক্ষ ৪৯ হাজার ৫ টাকা এবং চুক্তি মূল্য ২৪ লক্ষ ২১ হাজার ৫ শত ৫৪ টাকা।
স্হানীয়দের মাঝে পারতিত পরল গ্রামের শাহিদ পারভেজ মিথুন বলেছেন, রাস্তাটি নির্মাণ করার সময় একটি বেকু মেশিন নিয়ে এসেছিল। বেকু মেশিনটি রাস্তার উপরে থেকেই রাস্তার পাশে থেকে মাটি তুলে রাস্তায় দিয়েছে। এর ফলে নিচে মাটি না থাকায় রাস্তাটি ধ্বসে গেছে।
একই গ্রামের শাহজাহান কবির টুটুল বলেছেন, গাইড ওয়ালটি যদি ঠিক থাকত তাহলে রাস্তাটি ধ্বসে যেত না। গাইড ওয়ালের নিচে মাটি না থাকায় এটি ভেঙে পরেছে। ফলে একটু বৃষ্টিতে রাস্তাটি ধ্বসে গেছে।
সারিয়াকান্দি উপজেলা প্রকৌশলী লিয়াকত আলী আজকের পত্রিকাকে বলেছেন, রাস্তাটি আমি সরেজমিনে পরিদর্শন করেছি। অতি শিঘ্রই ভাংগা অংশগুলো মেরামত করে দেয়ার প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।
সারিয়াকান্দি উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ রাসেল মিয়া বলেছেন, আজ অথবা কালকের মধ্যেই ভাঙা অংশ মেরামত করা হবে।

Check Also

সোনাতলায় বায়তুল মামুর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে খাটিয়া প্রদান

আব্দুর রাজ্জাক, স্টাফ রিপোর্টারঃ শনিবার দুপুরে সোনাতলা উপজেলা পরিষদে বায়তুল মামুর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে উপজেলা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

10 + 12 =