সংবাদ শিরোনামঃ
প্রচ্ছদ / বগুড়ার খবর / সোনাতলায় ৯ মামলাসহ পর্নোগ্রাফি মামলার মূল আসামী ঠান্ডু গ্রেফতার

সোনাতলায় ৯ মামলাসহ পর্নোগ্রাফি মামলার মূল আসামী ঠান্ডু গ্রেফতার

আব্দুর রাজ্জাক,স্টাফ রিপোর্টারঃ বগুড়ার সোনাতলায় ৯ টি মামলাসহ পর্নোগ্রাফি মামলার মূল আসামী মনিরুজ্জামান ঠান্ডুকে গ্রেফতার করে আদালতে প্রেরণ করেছে থানা পুলিশ। ঠান্ডু উপজেলার বালুয়া ইউনিয়নের ছোটবালুয়া (কারিগরপাড়া) গ্রামের আবুল কাশেম এর ছেলে। মামলা সুত্রে জানা যায়, মামলার বাদী সুমির ব্যবহৃত মোবাইল ফোনে ওই ঠান্ডু অশ্লীল এসএমএস প্রদান সহ হুমকি দিতে থাকে। গত ২৫ মে ঠান্ডুসহ অজ্ঞাত ৩/৪ জন মোটর সাইকেল যোগে  বাদীর বাড়ী উপজেলা বালুয়া ইউনিয়নের নগরপাড়া গ্রামে বাড়ির সামনে লাল রং এর ০১ টি টিস্যু ব্যাগ ফেলে চলে যায়। ব্যাগের মধ্যে কয়েকটি কাগজে বিভিন্ন প্রকার লেখা এবং ০২ টি এসডি কার্ড পায় সুমি। এসডি কার্ডটি মোবাইল ফোনের মাধ্যমে চালু করে সুমি দেখতে পায় বিভিন্ন সময়ে গোপনে মোবাইল ফোনের মাধ‍্যমে ধারণকৃত অপ্রীতিকর ভিডিও ও অন‍্যের ছবির একাংশের সাথে ছবি এডিট করে অপর পুরুষের ছবি সংযুক্ত ভিডিও।
ভুক্তভোগী সুমি বেগম বাদী হয়ে ঠান্ডুকে মূল আসামী ও ৪/৫ জনকে অজ্ঞাত আসামী করে ২৫ জুন ২০১২ সালের পর্নোগ্রাফি নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করেন।
থানা পুলিশ পর্নোগ্রাফী মামলার মূল আসামী মনিরুজ্জামান ঠান্ডুকে ২৬ জুন গ্রেফতার করে। ২৭ জুন রবিবার সকালে ঠান্ডুকে আদালতে প্রেরণ করে। থানা সুত্রে জানা যায়, আসামী মনিরুজ্জামান ঠান্ডু’র বিরুদ্ধে নাশকতা, চাঁদাবাজি, নারী নির্যাতন, ডাকাতি, বিস্ফোরক, মাদক মামলাসহ মোট ০৯ টি মামলা বিচারাধীন রয়েছে।
সোনাতলা থানার সেকেন্ড অফিসার ইয়ামিন আলীর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেন।

Check Also

সারিয়াকান্দিতে কাঠমিস্ত্রির বাড়ীতে সিঁধ কেটে চুরি

সারিয়াকান্দি প্রতিনিধিঃ বগুড়ার সারিয়াকান্দির দিঘলকান্দি গ্রামের কাঠমিস্ত্রি আলী হোসেনের (৪৫) বাড়ীতে সিঁধ কেটে ঘরের যাবতীয় …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 × three =